কুমিল্লা সেনানিবাসে নারী সেনা সদস্যের আত্মহত্যা

কুমিল্লা সেনানিবাসের ফিল্ড ওয়ার্কশপের ব্যারাকে এক নারী সৈনিক আত্মহত্যা করেছেন। তার নাম হালিমা আক্তার (২০)। ফ্যানের সাথে ওরনা ঝুলিয়ে সে আত্মহত্যা করেছে। সোমবার দুপুর ১২ টা ৫৫ মিনিটে কুমিল্লা সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালের চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহত হালিমা আক্তারের পিতার নাম আবুল কালাম। নরসিংদী জেলার পলাশ উপজেলার বালুরচর গ্রামে। সে অবিবাহিত। সে কুমিল্লা সেনানিবাসের ভিতরে ১২৭ ফিল্ড ওয়ার্কশপের ব্যারাকে ফ্যানের সাথে ওরনা পেচিয়ে আত্মহত্যা করেছে বলে সেনাবাহিনীর সিনিয়র ওয়ারেন্ট অফিসার নিজামুল আহসান লিখিতভাবে সেনানিবাস পুলিশ ফাঁড়িকে জানিয়েছেন।

সেনানিবাস পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ শেখ মাহমুদুল হাসান জানান, সম্মিলিত সামরিক হাসপাতাল থেকে মরদেহ বুঝে পেয়েছেন। সুরতহাল রিপোর্ট করেছেন সাব ইন্সপেক্টর শামিম।

কুমিল্লা কোতয়ালী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ আবু ছালাম মিয়া জানান, নিহতের গলার ওরনার দাগ রয়েছে। মৃত্যুর কারণ ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পর জানা যাবে।

কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে নিহত হালিমা আক্তারের মরদেহের ময়নাতদন্ত বিকালে সম্পন্ন হয়েছে। কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের প্রভাষক ডা. শারমিন সুলতানা নিহতের ময়না তদন্ত করেন।

Comments

comments