কোটি টাকা নিয়ে নাঙ্গলকোটে পালিয়েছে প্রতারক স্বর্ণ ব্যবসায়ী

নাঙ্গলকোট ( কুমিল্লার খবর.কম ): কুমিল্লার নাঙ্গলকোটের বক্সগঞ্জ বাজারে স্বর্ণ ব্যবসার আড়ালে এক প্রতারক মানুষের নগদ টাকা, স্বর্ণালংকারসহ অন্তত কোটি টাকার সম্পদ নিয়ে গা- ঢাকা দিয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত লোকজন তাদের শেষ সম্বল হারিয়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন।


স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার বঙ্গঞ্জ বাজারের সালাহ উদ্দিন শিল্পালয় জুয়েলার্সের মালিক নামধারী আবদুর রহিম গ্রাহকদের বায়নার স্বর্ণ, বন্ধকের স্বর্ণ ও মুনাফার স্বর্ণ, ঋণের টাকা এবং নগদ টাকা সহ অন্তত কোটি টাকার সম্পদ নিয়ে গত কয়েক দিন থেকে গা- ডাকা দিয়েছে। প্রতিদিন অসংখ্য লোকজন তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে এসে প্রতিষ্ঠানে তালা বন্ধ দেখে হতাশ হয়ে বাড়ি ফিরছেন।


এদিকে,তার প্রতারণা এখানেই শেষ নয়। আবদুর রহিম বক্সগঞ্জ বাজারের তার ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানটি একাধিক লোকজনের কাছে বিক্রি করে টাকা নিয়ে গেছে। বর্তমানে দোকান ঘর ক্রয়কৃত ব্যক্তিদের মাঝে দোকানের দখল নিয়ে বাক-বিতন্ডা সহ উত্তেজনা বিরাজ করছে। সে এনজিও এবং বহুমুখী সমবায় সমিতি থেকে অনেক টাকা ঋণ নিয়ে গেছে। আবদুর রহিম নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলার পদুয়া গ্রামের স্বর্ণকার আবুল খায়েরের পুত্র। বক্সগঞ্জ ইউপির কোকালী গ্রামের ইউছুপ, দুলালমিয়া, শুভপুর গ্রামের পেয়ার আহম্মদ সহ কয়েকজন ভুক্তভোগী জানান, তাদেরসহ অনেক লোকজনের টাকা, স্বর্ণগয়না এবং ঋণের প্রায় কোটি টাকা নিয়ে রহিম পালিয়েছে। তারা আরও জানান তাদের টাকার জন্য তারা আইনগত ব্যবস্থা নিচ্ছেন।

ইতিপুর্বে রহিমের ছোট ভাই গোলাম রসুল একই বাজারে তার স্বর্ণ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে মানুষের প্রায় অর্ধকোটি টাকার স্বর্ণগয়না ও নগদ টাকা নিয়ে পালিয়ে যায়।


কুমিল্লার খবর.কম, ১৫-০৮-২০১১

Comments

comments